কিভাবে শীত কালে শুষ্ক ত্বকের যত্ন নিবেন

পরিবর্তনশীল আবহাওয়ার সাথে তাল মিলিয়ে শুষ্ক ত্বকের পরিচর্যা বেশ চ্যালেজিং হয়ে গেছে। শীত কালে বাতাসের আদ্রতা কম থাকায় শুষ্ক ত্বক যেন আরও বেশি টানটান এবং অনুজ্জ্বল দেখায়। তাই কিভাবে শুষ্ক ত্বকের যত্ন নিবেন সে বিষয় কিছু টিপস দিচ্ছি-

 

skin in winter

skin in winter

 

ময়শ্চারাইজার যুক্ত ক্লিনার ব্যবহারঃ

ত্বক পরিপূর্ণ পরিষ্কারের জন্য সুগন্ধি যুক্ত, সালফেট যুক্ত বা অ্যালকোহল সমৃদ্ধ ক্লিনার এড়িয়ে চলুন এবং ময়শ্চারাইজ করে এমন ক্লিনার ব্যবহার করুন। কারন উপরে উল্লেখিত ক্লিনার আপনার ত্বকের PH ব্যালেন্স নষ্ট করে,ফলে আপনার ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। তাই ক্লিনার ব্যবহারে সচেতন হউন।

 

ময়শ্চারাইজিং এ তেলের ব্যবহারঃ

ময়শ্চারাইজার সমৃদ্ধ ক্লিনার এর পরিবর্তে আপনি তেল ও ব্যবহার পারেন। ত্বক পরিষ্কারের পর যদি মনে করেন যে ত্বক টানটান লাগছে সেক্ষেত্রে আপনার হাতের তালুতে ৩-৫ ফোঁটা তেল নিন এবং খুব ভাল করে আপনার ত্বকে মাখিয়ে নিন। বিশেষ করে আপনি যখন মেকআপ করেন তখন ত্বক কে গভীর ভাবে পরিষ্কারের জন্য তেল খুব কার্যকরি। বিশেষ করে অলিভ অয়েল, এই তেল একদিকে যেমন আপনার ত্বক কে কন্ডিশনইং করবে অপর দিকে ঠাণ্ডা আবহাওয়া থেকে রক্ষা করবে।

স্ক্রাবিং করাঃ সুস্থ ত্বকের জন্য স্ক্রাবিং খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ডেড সেল বা মৃত কোষ আপনার ত্বকে একটি স্তর তৈরি করে, ফলে ময়শ্চারাইজার, এই স্তর ভেদ করে ত্বকের গভীরে প্রবেশ করতে পারে না। ফলে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। স্ক্রাবিং শুধু ত্বকের মৃত কোষ তোলে না, নতুন কোষ তৈরিতে সাহায্য করে। বাজারে বিভিন্ন দানাদার স্ক্রাবার পাওয়া যায়। আপনি চাইলে ঘরোয়া সামগ্রী দিয়ে স্কাবিং করতে পারেন। চালের গুঁড়া খুব ভাল স্ক্রাবার। আপনি চাইলে চালের গুঁড়া, লেবুর রস, মধু ও সামান্য পানি দিয়ে একটি প্যাক বানিয়ে নিতে পারেন। অথবা লেবুর রস,চিনি, মধু ও সামান্য পানি দিয়ে ও আপনি স্ক্রাবিং করতে পারেন। সেক্ষেত্রে পেস্ট করে মধুর পরিবর্তে আপনি অলিভ অয়েল ও ব্যবহার করতে পারেন।

 

শুষ্ক ত্বকের যত্ন

শুষ্ক ত্বকের যত্ন

 

মাক্স এর ব্যবহারঃ

সাধারনত ত্বকের পুষ্টির জন্য বিভিন্ন ধরনের মাক্স এর ব্যবহার করা হয়। ঘরে থাকা সাধারন উপকরন দিয়ে তৈরি করে নিতে পারবেন আপনার ত্বকের উপযোগী মাক্স। কাঠবাদাম মাক্স, টমেটো মাক্স, হলুদের মাক্স, লেবু ও মধুর মাক্স প্রভৃতি শুষ্ক ত্বকের উপযোগী।

  • শুষ্ক ত্বকের অধিকারী ব্যাক্তি রা কখনই গোসলে খুব গরম বা ঠাণ্ডা পানি ব্যবহার করবেন না।এতে আপনার ত্বকের খুব ক্ষতি হবে।
  • ধুলা বালি থেকে ত্বককে রক্ষা করুন।
  • প্রচুর পরিমানে পানি খান।
  • পুষ্টিকর খাবার খান।

মনে রাখবেন, শুষ্ক ত্বকে খুব তাড়াতাড়ি বয়সের ছাপ পড়ে। তাই শুষ্ক ত্বকের যত্নশীল হউন। ভালো থাকবেন 🙂

Related Post

কিভাবে নখের যত্ন নিবেন... আমাদের শরীরে অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ অংশ যেমন: ঠোঁট, চুল ,ত্বক, দাঁত এর মতই হাত এবং পায়ের নখ ও গুরুত্বপূর্ণ। সুস্থ ও সুন্দর নখ শুধু আপনার সৌন্দর্যের প্র...
শীতে ঠোঁটের যত্ন নিবেন কিভাবে... শীত কাল এসেছে। এই শীতের প্রভাব আমাদের শরীরে ইতোমধ্যে পড়তে ধরেছে। শীতকালে ঠোঁটের সমস্যায় পড়ে নি, এমন ব্যক্তি খুঁজে পাওয়া কঠিন। শীতে বাতাসের আদ্রর্তা কম...

You may also like...

1 Response

  1. ফেব্রুয়ারী 7, 2016

    […] চর্চায় লেবুর তুলনা নেই। চুলের যত্নে, ত্বকের যত্নে, নখের যত্নে কিংবা ঠোঁটের যত্নে লেবু […]

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।