ঘরেই তৈরি করুন লিচু জুস লিচি জুস রেসিপি

চলছে আম লিচুর মৌসুম । দিনাজপুর এর লিচুর দেশ জুড়ে নাম । তো রোজার কারনে সরাসরি লিচু খেতে অনেকের হয়তো একটু কেমন কেমন লাগছে কারন লিচু হজম হতে কিছুটা বেশি সময় নেয় । তবে ইফতারে আপনি সহজের পরিবেশন করতে পারেন লিচুর জুস । আর বাচ্চারাও বেশ পছন্দ করে লিচি ড্রিংস । আর আজ দেখাবো কিভাবে ঘরেই আপনি তৈরি করবেন মজাদার লিচু জুস ।

তৈরি খুবই্ সহজ, লিচুর খোসা্ ও বীজ ছড়িয়ে নিয়ে ব্লেনড করে নিলেই হয়ে যাবে লিচুর জুস । তো কথা না বাড়িয়ে চলুন দেখে নেই লিচি ড্রিংস কিংবা লিচু জুস বানাতে কি কি উপকরন আপনার লাগবে ।

লিচু জুস তৈরির উপকরন

  • লিচু প্রায় ২৫ -৩০ টা কিংবা পরিমান মতো
  • চিনি প্রয়োজন মতো
  • পানি
  • বরফ কুচি বা কিউব
লিচু

লিচু জুস তৈরির উপকরন গুলো সহজেই পেয়ে যাবেন । চলুন দেখি কেমন করে বানানো যায় লিচি জুস ।

লিচুর জুস তৈরি

চলুন এবার দেখে নেয়া যাক লিচুর জুস বানানোর নিয়ম । শুরুরেই আমরা লিচুর খোসা ছড়িয়ে নেবো । প্রতিটি লিচুর খোসা ও বীজ ছড়িয়ে নিন। তবে ভালো করে দেখে খোসা সড়ান, লিচুর মুখে অনেস সময় পোকা থাকে

খোসা ও বীজ ছড়ানোর পর লিচু

উপরের ছবিতে দেখতে পাচ্ছেন খোসা ও বীজ ছাড়িয়ে নেবার পর লিচু । লিচুর খোসা ছড়ানোর আগেই্ লিচু গুলো একটু ধুয়ে নিলে ভালো হয় কারন খোসা ছড়ানোর সময় অনেক সময় ময়লা লেগে যেতে পারে ।

লিচু ব্লেন্ড করা

এবার ব্লেন্ডার এ দিয়ে ব্লেন্ড করুন, সাথে একটু পানি দেবেন যাতে ভালো করে ব্লেন্ড হয় । এবার পরিমান মত চিনি যোগ করে আবার ব্লেন্ড করুন । লিচু টক হলে চিনির পরিমান একটু বেশি লাগতে পারে । লিচু ব্লেন্ড করার পরও এতে প্রচুর আশ থাকে । চাইলে এরকম ই পরিবেশন করতে পারেন ।

ব্লেন্ড করা লিচু ছেকে নেয়া

যেহেতু ব্লেন্ড করার পরও বেশ আস থাকে লিচুতে, তাই পরিবেশন করার আগে ছাঁকনি দিয়ে ছেঁকে নিন । ছাকনি না থাকলে একটি পরিস্কার পাতলা সুতি কাপড় দিয়েও ছেকে নিতে পারেন।

সব শেষে লিচুর জুস পরিবেশন করার সময় এতে কিছুটা বরফ কুচি দিন । কিংবা ভালো হয় বরফের কিউব দিলে যা ভেসে থাকে এবং দেখতে ও বেশ ভালো লাগে।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!