বুন্দিয়া রেসিপি বাড়িতে বুন্দিয়া বানানোর রেসিপি – বুন্দা তৈরি

বুন্দা  বা বুন্দিয়া কম বেশি সবার ই পছন্দের একটি মিস্টিজাত খাবার ।  ছোলা বুন্দিয়া কিংবা বুন্দিয়া পুরি অনেকের ই পছন্দ। আর রমজান মাসে ইফতার এর একটি আইটেম এই বুন্দিয়া। করনা পরিস্থির কারনে বাইরে বের না হওয়াই ভালো । তাই বুন্দিয়া কিভাবে বাড়িতে বানায় তা নিয়ে আমাদের আজকের  রেসিপি ।  খুব সহজেই বাড়িতে বুন্দিয়া বানানোর রেসিপি। তো চলুন জেনে নেয়া যাক সহজ বুন্দিয়া রেসিপি


বাড়িতে বুন্দিয়া বানানোর রেসিপি

বাড়িতে বুন্দিয়া বানানোর রেসিপি

বুন্দিয়া বানানোর রেসিপি

এর আগে আমরা দেখিয়েছিলাম কিভাবে আলু সিঙ্গাড়া বানানো যায় । আর আজকের বুন্দিয়া রেসিপিতে শুরুতেই জেনে নেই কি কি লাগছে বুন্দা বানাতে ।

বুন্দিয়া বানানোর ধাপ সমূ্হ

চার ধাপে আমরা বানাবো বুন্দিয়া । আর সেই ধাপ গুলো হলো

  1. বেসন তৈরি
  2. সিরা তৈরি
  3. বুন্দিয়া ভাজা
  4. বুন্দিয়া সিরার সাথে মেশানো

বুন্দিয়ার উপকরন সমুহ

  • বুটের বেসন  – ৩ কাপ
  • সয়াবিন তেল – ৩ টেবিল চামুচ
  • চিনি ৪ কাপ (শিরা তৈরির জন্য )
  • লেবু ১ ফালি (একটি লেবুর ৩ ভাগের এক ভাগ)
  • সাদা এলাচ বা সাদা ফল  (ঐচ্ছিক)
  • খাবার সোডা – সামান্য পরিমান
  • লবন   (ঐচ্ছিক)

১. বুন্দিয়ার বেসন তৈরি

শুরুতেই আমরা বুন্দিয়ার বেসন তৈরি করবো । একটি মোটামুটি সাইজের পাত্রে (নিচের ছবিতে দেখানো কাপের মতো ) ৩ কাপ বুটের বেসন নিন । অবশ্যই বেসন টি চালুনি দিয়ে চেলে নিবেন । এর পর খাবার সোডা ও লবন সামান্য পরিমানে মিক্স করে নিন ।

বুন্দিয়া রেসিপি র বেসন তৈরি

বুন্দিয়া রেসিপি র বেসন তৈরি

এবার মিক্স করা বেসন গুলোতে পানি যোগ করবো আমরা । পরিমান টি হচ্ছে এক কাপ বেসন এর জন্য কাপের ৩ ভাগের ২ ভাগ পানি । তো ৩ কাপ বেশন এর জন্য দুই কাপ বা একটু বেশি পানি দিয়ে নিচের মতো মিশিয়ে নিন ।

বুন্দিয়ার বেসন এ পানি মেশানো হচ্ছে

বুন্দিয়ার বেসন এ পানি মেশানো হচ্ছে

পানি মেশানোর সাথে একটু তেল ও যোগ করে নিন । এবার সবগুলোকে ভালো ভাবে মিশিয়ে নিন এবং দেখুন যেনো নিচের মতো একটু আঠালো ও হয় । তাহলে বুঝবেন আপনার মেশানো টি পারফেক্ট হয়েছে ।

বেসন মিক্স

বেসন মিক্স

বেসন মিক্সস হয়ে গেছে । এবার কিছুক্ষন রেখে দিন গুলানো বেসন গুলো । এবার আমরা তৈরি করবো বুন্দিয়ার সিরা ।

২. বুন্দার সিরা তৈরি

একটি পাত্রে যে কাপে করে বেসন নিয়েছিলেন, সেই একই কাপে এবার ৪ চাপ চিনি নিয়ে একটি পাত্রে রাখুন । এবং ঐ একই কাপ এ করে ২ কাপ পানি নিন।  নিচের ছবির মতো

সিরার চিনি ও পানি মেশানো

সিরার চিনি ও পানি মেশানো

চিনি গুলোকে আলাদা ভাবে গুলানোর দরকার নাই । এবার সেখানে লেবু ও ২ টি সাদা ফল বা সাদা এলাচ দিয়ে চুলায় উঠিয়ে দিন এবং জ্বাল দিন । প্রায় ১২ থেকে ১৫  মিনিট জ্বাল দেবার পর দেখুন একটু গাড় হয়ে আসবে । এবার নামিয়ে রেখি নিন ।

তৈরি বু্ন্দিয়ার সিরা

তৈরি বু্ন্দিয়ার সিরা

নোট :  সিরাতে লেবু ব্যবহার করা হয়েছে যাতে করে বুন্দিয়ার গায়ে সিরা লেগে দানা বেধে না থাকে ।

এবার আমাদের ৩য় ধাপ এর কাজ করতে হবে । অর্থাৎ বুন্দিয়া ভাজা …

৩. বুন্দিয়া ভাজা

তো এবার একটি কড়াই এ বেশি করে তেল নিয়ে নিন প্রথমে এবং চুলায় উঠিয়ে দিন । এব পর তেল গরম হলে তাতে দুই এক ফোটা বেসন দিয়ে দেখুন সাথে সাথে ভেসে উঠছে  কিনা ।

এর পর একটি ছিদ্র যুক্ত চামুচ যোগাড় করুন যেটি ব্যবহার করে আমরা বুন্দার সেপ দেবো মেশানো বেসন গুলো । চামুচ টি কড়াই এর তেলের প্রায় ২ ৩ ইনচি উপরে রাখুন । এবার ছোট গোল ডাবু বা মাঝারি টেবিল চামুচ দিয়ে বেসন গোলা একটু ছিদ্র ওয়ালা চামুচ টির উপর দিন । নিচের ছবিতে দেখুন ।

ভাজা বুন্দিয়া বানানোর নিয়ম

ভাজা বুন্দিয়া বানানোর নিয়ম

ঢেলে দেয়া বেসন গুলো নিচে বিন্দু বিন্দু করে পড়বে । ছিদ্র ওয়ালা চামুচটি হালকা ঝাকান, যাতে মোটামুটি সবগুলো পড়ে । এবার সেটি সরিয়ে নিন এবং একটি ভিজা নরম কাপড় দিয়ে মুছে রেখে দিন । বার বার চামুচ টি মুছে নিতে হবে, তা না হয়ে বুন্দার দানা ভালো আসবেনা ।

বুন্দা বেশি ভাজতে যাবেন না, তা না হয়ে দানা গুলো শক্ত হবার সম্ভাবনা থাকে । এরপর বুন্দিয়া গুলো তুলে নিন আর একটি ছিদ্র ওয়ালা হাতার সাহায্যে কিংবা ছাকনি তে । নিচের ছবিতে দেখুন ।

ভাজা বুন্দিয়া তুলে নিন

ভাজা বুন্দিয়া তুলে নিন

এভাবে সবগুলো বেসন ভেজে নিন । মোটামুটি একটা ছোট বোল ভরে যাবে আশা করি 🙂

ভেজে রাখা বুন্দিয়ার ছবি

ভেজে রাখা বুন্দিয়ার ছবি

এবার ফাইনাল ধাপ অর্থাৎ ভেজে রাখা বুন্দিয়া চিনির সিরায় ভেজানো ।

৪. বুন্দিয়া সিরার সাথে মেশানো

তৈরি করে রেখে দেয়া সিরা গুলো একটু গরম করে নিন । এমন গরম যাতে আপনার আঙ্গুল সহ্য করতে পারে । এবর সেই সিরাতে ভেজে রাখা বুন্দা দানা গুলো ডেলে দিন । নিচের ছবির মতো …

বুন্দা সিরার সাথে মেশানো হচ্ছে

বুন্দা সিরার সাথে মেশানো হচ্ছে

এরপর চামুচ দিয়ে সবগুও মিশিয়ে স্বাভাবিক তাপমাত্রায় ঘন্টা দুয়েক রেখে দিন । ঘন্টা  দুই তিন পরে রেডি হয়ে যাবে আপনার নিজের তৈরি বুন্দিয়া । আমিও প্রথম বারের মতো ট্রাই করেছি এবং হয়েও গেছে বেশ সুন্দর 🙂 তো এই ছিলো আমাদের আজকের রান্নাঘরের ছোট্ট আয়োজন যা আপনার ইফতারে অনায়াসেই ব্যবহার করতে পারেন । আশা করি বিফল হবেন না । ভালো থাকবেন, সাবধানে থাকবেন ।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!