বাড়িতে সহজ আলু সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি

বাড়িতে সহজ আলু সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি নিয়ে আমাদের আজকের আয়োজন । যাতে সহজেই আপনি আপনার হাতের কাছে যা আছে, তাই দিয়ে সিঙ্গারা তৈরি করতে পারেন । আমরা সিঙ্গারা তৈরির নিয়ম এ উপকরন গুলো নিয়েছি সেগুল প্রায় সবসময় বাড়িতেই থাকে । আর যেহেতু বাড়িতেই বানাবো, তাই ইফতার আইটেম হিসেবেও পরিবেশন করতে পারেন। সিঙ্গাড়ার ইংরেজি Singara বা Samosa বলেই চালিয়ে দেয়া যেতে পারে।

আলু সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি

তো চলুন দেখে নেয়া যাক খুব  সহজ সিঙ্গারা বানানোর নিয়োম বা সিঙ্গারা বানানোর রেসিপি

নিচে আমাদের বাড়িতে হাতে বানানো ভাজা সিঙ্গারার ছবি 🙂 আর ধাপে ধাপে আপনারা ও শিখে যাবেন সিঙ্গারা তৈরির নিয়ম

সিঙ্গারার ছবি - সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি

সিঙ্গারার ছবি

সিঙ্গারা তৈরির ধাপ সমূহ

সিঙ্গাড়া প্রস্তুত করতে আমাদের যে যে ধাপ গুলো অনুসরন করতে হবে

  1. সিঙ্গারর পুর তৈরি (যা সিঙ্গারার ভিতরে থাকে, আলু-বাদাম  আলু-কলিজা কিংবা অন্য কিছু )
  2. সিঙ্গারর রুটি তৈরি (যা সিঙ্গারার বাইরে থাকে সেটা  )
  3. সিংগাড়ার ভিতরে পুর দিয়ে মোড়ানো
  4. সিংগাড়া ভাজা এবং পরিবেশন ।

 সিঙ্গারার  খামির তৈরির উপকরন

খামির বলতে যেটি দিয়ে রুটি বানানো হবে । খামির তৈরির উপকরন গুলো হলো

  • ময়দা প্রয়োজন মতো
  • সয়াবিন তেল
  • কালি জিরা
  • সামন্য লবন ও চিনি

সিঙ্গারা  পুর তৈরির উপকরন

সিঙ্গারার পুর বানানোর জন্য আপনার যে যে উপকরন গুলো লাগবে সেগুলো হলো

  • আলু
  • পেয়াজ
  • কাচা মরিচ
  • পাঁচ ফোড়ন (ডালের মসলা)
  • আদা ও রসুন বাটা অল্প পরিমানে
  • হলুদ গুড়া ও ঝাল গুড়া
  • জিরা গুড়া
  • লবন ও তেল

প্রস্তুত প্রণালী – সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি

ধাপে ধাপে সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি দেখে নেই । শুরুতেই খামির তৈরি করি ।

সিঙ্গারার খামির তৈরি পদ্ধতি

প্রথমেই খামির তৈরির জন্য একটি পাত্রে পরিমান মতো ময়দা নিন । এর পর এটিতে সামান্য লবন, চিনি এবং কালো জিরা মিশিয়ে নিন । চিনি টা ঐচ্ছিক, তবে চিনি দিলে সাধটা একটু ভালো আসে । এবার এর মধ্যে সামান্য সয়াবিন তেল দিতে হবে । তেল ও এই ময়দাটা খুব ভালোভাবে মেশাতে হবে যাতে করে পারফেক্ট সিঙ্গাড়া তৈরি করা যায় ।  এবং ভালোভাবে মিক্সিং হলে তেল মাখানো ময়দা গুলো দলা বাধানো যাবে । যখন দেখবেন, তেল মাখানো ময়দা হাতের মুঠোয় দলা বাধানো যাচ্ছে, তখন বুঝবেন পারফেক্ট ভাবে মেশানো হয়েছে ।

খামির তৈর পদ্ধতি

খামির তৈর পদ্ধতি

এর পর সাভাবিক পানি দিয়ে আস্তে আস্তে খামির টি তৈরি করে নিতে হবে । একবারে বেশি পানি না দিয়ে অল্প অল্প করে পানি দিয়ে খামির টি তৈরি করে নিন । খামির টি খাব বেশি নরম রাখবেন না । এবার খামির টি কিছুক্ষন ঢেকে রাখুন এবং এই ফাকে আমরা সিংগাড়ার পুর তৈরি করবো ।

সিংগাড়ার পুর তৈরি পদ্ধতি

শুরুতেই কয়েকটি আলু নিন । আপনার খামির এর পরিমান অনুসারে আন্দাজ করে নিন । এবার আলো গুলো নিচের ছবির মতো করে কিউব কিউব করে কেটে নিন ।

সিংগাড়ার আলু

সিংগাড়ার আলু

এবার পেয়াজ ও মরিচ কেটে নিন, কুচি করে কেটে নিবেন  । সামান্য আদা ও সামান্য রসুন বেটে নিন কিংবা ব্ল্যান্ড করে নিন । এবার চুলায় একটি ফাই পেন ( না থাকলে কড়াই এ ও করা যাবে  ) বসিয়ে দিন এবং এটি গরম হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন । পাত্রটি গরম হলে তাতে পরিমান মতো তেল দিয়ে পাঁচ ফোড়ন দিন

এর পর একে একে পেয়াজ কুচি, কাচা মরিচ কুচি, আদা ও রসুন বাটা, জিরা গুড়া, হলুদ গুড়া, গুড়া মরিচ ও লবন পরিমান মত দিয়ে নিন । এবার এগুলোকে হালকা ভাজতে থাকুন । খেয়াল রাখবেন, পেযাজ এবং মসলা গুলো যেনো পোড়া না লাগে ।

পিয়াস ও অন্যন্য মসলা

পিয়াস ও অন্যন্য মসলা ফাই প্যান

এবার একটু পানি দিয়ে কষিয়ে নিন । এর পর কেটে রাখা আলু গুলো ফ্রাই প্যানে ঢেলে দিন এবং নাড়তে থাকুন । পানি টা কমে এলে আবার নতুন করে পানি দিয়ে ঢেকে দিন এবং অপেক্ষা করুন আলু গুলো সেদ্ধ হওয়া পর্যন্ত ।

প্যান এ আলু ও মসলা পুর তৈরির জন্য রেডি করা হচ্ছে

প্যান এ আলু ও মসলা পুর তৈরির জন্য রেডি করা হচ্ছে

আলু গুলো ভালো মতো সেদ্ধ হয়ে এলে যদি পানি থাকে, পানি শুকিয়ে ফেলুন এবং আলু গুলোকে একটু মেশ করে নিন । নিচের ছবিতে দেখুন ।

সেদ্ধ করার পর সিঙ্গারার পুর এর আলু

সেদ্ধ করার পর সিঙ্গারার পুর এর আলু

সিংগাড়ার বাাদাম  ভাজা

যদি ঘরে কাচা বাদাম থাকে, তাহলে অবশ্যই বাদাম অ্যাড করুন । সাথ আরো ভালো আসবে । তো সেটা করার জন্য কাচা বাদাম গুলো ফ্রাই পেন এ ভেজে নিন । নিচের ছবিতে দেখুন ।

বাদাম ভাজা

বাদাম ভাজা

এবার বাদাম গুলো আলুর পুর এর সাথে মিক্সড করুন । সাথে কাচা মরিচ ও যোগ করতে ভুলবেন না । সাধে ভিন্যতা আসবে । নিচের ছবিতে দেখুন ।

সিঙ্গারার পুর প্রস্তুত

সিঙ্গারার পুর প্রস্তুত

এবার চলুন সিংগারার উপরের স্তর এর খামির তৈরি গুলোকে রুটি বানাই ।

সিংগারার রুটি তৈরি

আমরা শুরুতেই সিংগাড়ার খামির তৈরি করে রেখেছিলাম । এবার সেই খামির থেকে রুটি তৈরি করবো । তো সাধারন রুটি যেভাবে করে ঠিক সেভাবেই, কিন্তু একটু লম্বা করে নেবেন । নিচের ছবিতে দেখুন ।

সিংগারার রুটি

সিংগারার রুটি

তবে রুটি খুব বড় করার দরকার নেই , আমরা একটি রুটি থেকে দুটি করে সিংগাড়া বানাবো । এবং উপরের রুটি টি আমরা দুই ভাগে ভাগ করবো । নিচের ছবিতে দেখুন ।

সিংগারার রুটি

সিংগারার রুটি কেটে দুভাগ করা হয়েছে

তো চলুন এবার আমরা সিঙ্গারার রুপ দেই আমাদের উপাদান গুলোকে ।

সিঙ্গারার রুপ দেয়া – সিঙ্গারা বানানোর পদ্ধতি

তো এবার রুটির একটি পার্ট নিয়ে তাকে শুরুতে এক পৃষ্টের সাথে অন্য পৃষ্ট একটু মুড়িয়ে নিন  যাতে অনেকটা ফালেন এর মতো হয় । মোড়ানোর সময় একটু পানি ব্যবহার করবেন জয়েন্ট গুলোতে যাতে খুলে না যায় ।

এর পর ভিতরে আপনার তৈরি পুর গুলো পরিমান মতো দিন । নিচের ছবিতে দেখুন …

সিঙ্গারার রুপ দেয়া

সিঙ্গারার রুপ দেয়া

 

পুর দেয়া হয়ে গেলে এবার শাড়ির কুচির মতো করে একটা কুচি দিয়ে মুড়িয়ে নেবেন । যাতে পুর গুলো পুরো সিংগাড়ার ভিতরে থাকে । এবার ও মোড়ার একটু পানি ব্যবহার করবেন যাতে খুলে না যায় ।

মোড়ানোর সময়

মোড়ানোর সময়

নিচে বেশ কিছু কাচা মোড়ানো সিঙ্গারার ছবি দেয়া হয়েছে । সবগুলো আগে তৈরি করে নিন এবং এর পর আমরা ভাজবো ।

মোড়ানো সিঙ্গারার ছবি

মোড়ানো সিঙ্গারার ছবি

সিঙ্গারা তেলে ভাজা

সদ্য তৈরি কার মোড়ানো সিঙ্গারা গুলো এবার ভাজতে হবে । তো কড়াই এ তেল পরিমান মতো নিন । সিঙ্গারার ডুবো তেলে ভাজতে হয় ।  তেল গরম না হতেই তেলে সিঙ্গারার ছেড়ে দিতে যাতে অল্প তাপে ধিরে ধিরে সিঙ্গারার গুলো ভিতর থেকে ভাজা হয় । সিঙ্গারা অল্প তাপে ভাজতে হয়, যাতে ভালো ভাবে ভাজা হয় এবং পুড়ে না যায় ।

আর কড়াই এ তেল কম থাকলে বার বার সিঙ্গারার  উপর গরম তেল দিন।

কড়াই এ সিঙ্গাড়া ভাজা হচ্ছে

কড়াই এ সিঙ্গাড়া ভাজা হচ্ছে

এক সাইড একটু বাদামী হতেই উল্টায়ে দিন । এবং হয়ে গেলে নামিয়ে নিন । এভাবে বাকি গুলো ও ভেজে নিন ।

তো হয়ে গেলো বাড়িতেই খুব সাধারন ভাবে তৈরি আলু সিঙ্গারা । এবার টমেট সস সহ কিংবা  হালকা সালাদ সহ অথবা এমনি ই পরিবেশন করতে পারেন পরিবারের সদস্য দের কাছে ।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!